1. adnanfahim069@gmail.com : Adnan Fahim : Adnan Fahim
  2. admin@banglarkota.com : banglarkota.com :
  3. miraz55577@gmail.com : মোঃ মিরাজ হোসেন : মোঃ মিরাজ হোসেন
  4. ridoyahmednews@gmail.com : Ridoy Khan : Ridoy Khan
  5. zahiruddin554@gmail.com : Md. Zahir Uddin : Md. Zahir Uddin
রবিবার, ০৭ মার্চ ২০২১, ০৭:৫৪ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :

আপনার লেখা গল্প,কবিতা,উপন্যাস, ছড়া গ্রন্থ আকারে প্রকাশ করতে যোগাযোগ করুন। সাগরিকা প্রকাশনী ০১৭৩১৫৬৪১৬৪৷ কিছু সহজ শর্তে আমরা আপনার পান্ডুলিপি প্রকাশের দায়িত্ব নিচ্ছি। ঘরে বসে যে কোন বই কিনতে বা বিক্রি করতে আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন।বই বিপণী বিডি।মোবাইলঃ ০১৭৩১৫৬৪১৬৪, www.boibiponibd.com

জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টালে কিছু সংখ্যক সংবাদকর্মী নিয়োগ দেওয়া হবে। যোগাযোগ ০১৭৩১৫৬৪১৬৪ অথবা সরাসরি মোহাম্মদপুর মোড় বাসস্ট্যান্ড,ছুটিপুর রোড,ঝিকরগাছা,যশোর।

বইঃআলোর ফেরিওয়ালা লেখকঃমুহাম্মদ বরকত আলী।বাংলার কথা অনলাই।।

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: শনিবার, ৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৭০ বার পড়া হয়েছে

রিভিউ লেখিকাঃ দিলারা জেমি 
বইঃআলোর ফেরিওয়ালা
লেখকঃমুহাম্মদ বরকত আলী
প্রকাশনাঃশব্দ ভূমি
মলাট মূল্যঃ২০০৳টাকা
🖋উৎসর্গটা দেখেই বইটা আমার মধ্যে জাগতিক বাস্তবতা ফুঁটিয়ে তুললো।
🖋যারা বেসরকারি শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানে কর্মরত তাদের জীবনে কতশত ব্যাথা মনের মধ্যে সারাজীবন পুষে রাখেন তা তাদের ভিতরটাই জানে😥
🖋দিনের শুরু থেকে যথারীতি প্রতিদিনের ক্লাস,কার্যক্রম,দায়িত্ব,স্কুলের শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা সব কিছু বিবেচনা করে শিক্ষকদের উপর।কিন্তু এভাবে চলতে থাকে মাসের পর মাস।দিনশেষে তারা তাদের নায্য অধিকার আদায় করতে পারেনা।
🖋কিছুদিন পর পর মিটিং ডাকে আবার সেই মিটিংয়ের টাইম যদি ১২টায় হয় কেউ আসে ১টায় আবার কেউ ২টায়।ওইদিকে অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করতে থাকে সকল অবৈতনিক শিক্ষকেরা।মিটিংয়ে বলে যায় সাহেবরা অভিভাবকদের কল দিবেন যোগাযোগ করবেন(কল তো দিবও কলবিলের কথাটা কেনো তুলেনা?
🖋যুগের পর যুগ চলে গেছে,কত কিছু বদলেছে তবুও তালেব মাস্টারের মতো শিক্ষকদের ভাগ্য আজও বদলায়নি।এসকল আলোর ফেরিওয়ালারা মানববেতর জীবন-যাপন করেন।অনেক শিক্ষক আছেন যারা সারা জীবন আমার আপনার মতো শিক্ষকতা করে বেতনের অপেক্ষায় থেকে সোজা অবসর😥
🖋প্রিয় লেখক ভাই,খুব মজা পেয়েছি বইয়ের দুটো অনুগল্পে,একটা মশা ধরে হোমিওপ্যাথির ঔষধ দেওয়া কাচের শিশির ভিতর সাত দিন আটকিয়ে রেখেছি।মশা কতদিন বাঁচে পরখ করতে।এতটুকু প্রাণী বিনা কারণে হত্যা করব কেন?বুড়ো মেরে খুনের দায়ের মতো।মশাটা তো আমার ক্ষতি করেনি।শরীরে বসেছিল রক্ত চুষার আগেই আমার হাতে বন্দী সে।হা হা😀
🖋দ্বিতীয় মজা,ষষ্ঠ শ্রেণীর স্টুডেন্টস নিয়ে কল্পনার জগতে চাঁদের ভ্রমণটা(এটাতে বেশি মজা পেয়েছি আমার সাথে মিলে গেল বলে আমিও বাচ্চাদের নিয়ে মাঝে এমন কান্ড করে বসি তাদের বিনোদন দিতে)
অনুরোধঃওইযে রকেটটি তো সাঁ সাঁ সাঁ সাঁ করে যাচ্ছিলো এই সাঁ শব্দটি উচ্চারণ করে শুনাবেন,লেখক😀
🖋আসসালামু আলাইকুম,স্যার।আপনি একটু সরে বসেন আমি চুলাটা জ্বালিয়ে দিচ্ছি।উত্তরে লজ্জিত কন্ঠে বললেন,তপু,তুমি?
একজন শিক্ষক।আলোর ফেরিওয়ালা।যিনি সারাজীবন অন্যের মাঝে আলো বিলিয়েছেন তার জীবনে নেমে এলো একের পর এক অন্ধকার।কাদের গাজী স্যার তাদের দলেরই একজন।
🖋স্যারের হাতে লাগানো গাছ দুটি ঠায় দাঁড়িয়ে আছে আজ।কিরে সবাই গেলো তুরা যাবি না।না যাবে না,ওরা যে গাছ।ইচ্ছে থাকলেও যাবেনা তাই দাঁড়িয়ে আছে।নিজের সন্তানের মতো গাছ দুটোকে স্যার খুব লালন পালন করতেন।তাই আজ তারা স্যারের মৃত্যুর বার্তা পেয়ে নীরবে দাঁড়িয়ে কান্না করছে।এ কান্না সবাই শুনতে পায়না।গাছের কান্নার যে শব্দ হয়না😥😥
🖋ভুল-ত্রুটি সংশোধনঃলেখক ভাইয়া বানানে অনেক ভুল পেয়েছি আর বাক্যে যতিচিহ্নের ব্যবহারেও ভুলবশত ব্যবহার করেছেন।দয়া করে শুধরে নিবেন।শুভ কামনাশাপলা শালুক🌹
🖋পুরোদমে শেষ করেছি বইটা,আমাদের বাস্তব জীবনে অবৈতনিক শিক্ষকদের নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ কথা তুলে ধরেছেন বইটিতে।
🖋তোমার কথা একেবারে ফেলে দেওয়ার মতো না।তবে এভাবে আর কতদিন চলে বলো,আমাদেরও তো জীবন(অবৈতনিক শিক্ষক)
চলুন,তবে পড়ি,আলোর ফেরিওয়ালা

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সাগরিকা প্রকাশনী ও বই বিপণি । সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত